আমার লিখা

 
picture of scenery এর ছবির ফলাফল
লিখতে আমি বড্ড ভালোবাসি।
আমার লিখায় আছে সব-
যা আছে তোমার আমার পাশাপাশি,
আর আছে পাখির কলরব ।।
আমার লিখা প্রকৃতির সাথে করে মাখামাখি ।
ছাদের এক কোনায় দাঁড়িয়ে –
শুধু করে চারিদিক দেখাদেখি ,
ভাবতে থাকে সবার কথা আনমনে।।
আমার লিখায় আছে রাস্তাঘাট,গাছপালা,
আছে ঝর্নার আওয়াজ –
সাথে পাহাড়,জঙ্গল,নদীনালা
আর আছে সূর্যের তেজ ।।
আমার লিখা আমাকে কাঁদায়,হাসায় আর ভাবায়।
আমার লিখা আমাকে নতুন করে বাঁচতে শেখায় ।
সেই ছোটবেলায় হাত ধরেছি আমার লিখার,
পথে চলতে চলতে হোঁচট খেয়েছি কতবার –
তবুও থামি নি লিখা আছে যে সাথে।।

আমি কে

 
আমি প্রকৃতির এক অনবদ্য সৃষ্টি
যখন মুষলধারে হয় বৃষ্টি,
আর আমি সেই বৃষ্টিতে ভিজতে থাকি
মনে হয় আমিই বৃষ্টি হয়ে পড়ছি।
যখন আমি নদীতে ডুব দিই।
মনে হয় আমি অংশ শুধু নদীর ই
নদীর জলে চান করে আমার মন
আমি তখন নদী হয়ে যায় কিছুক্ষণ।
আবার যখন পাহাড়ের চূড়ায় আমি
তখন কেমন পাহাড়ের ভেতর ঢুকে থাকি
শুধু মনে হয় আমি ই পাহাড়
মনে হয় অনেক উঁচুতে আমি,পাথরে ভর্তি এক খাড়া পাহাড় ।
যখন সমুদ্রের ঢেউ লাগে আমার শরীরে মনে
কখন যেন মিশে যায় ঢেউয়ের সাথে একান্তে গোপনে
ভাবতে থাকি বিশাল সমুদ্রের ই সন্তান আমি
সমুদ্রের স্রোতে মনকে নিয়ে আমি সাঁতার কাটি ।
যখন কোনো পাহাড়ের কোল থেকে ঝর্ণা নামছে
আর ঠিক তার নিচে আমার শরীর মনকে নিয়ে ভাবছে
ভাবছে আনমনে আমি ই যেন সেই দুরন্ত ঝর্ণা ।
প্রবল বৃষ্টিতে আমি ই তৈরি করি বন্যা।
এইভাবে প্রকৃতির সাথে মেখে থাকি আমি
কখনো কখনো বুঝতে পারি না কে আমি ?
আমি কি প্রকৃতির ই এক সন্তান ?
নাকি প্রকৃতিই আমার সন্তান ?